Header Border

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৮শে মে, ২০২৪ ইং | ১৪ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল) ২৫.৯৬°সে

মাহফুজ ইসলামের ‘কপাল’ নাটকে আলিফ-জারা মনি

এ প্রজন্মের তরুণ নির্মাতা মাহফুজ ইসলাম। ছোট পর্দায় সমান তালে নাটক নির্মাণ করে যাচ্ছেন তিনি। আলোচনায় এসেছে তার বেশ কিছু নাটক। দর্শকদের ভালোবাসায় একের পর এক নাটক উপহার দিয়ে যাচ্ছেন তিনি। সম্প্রতি ‘কপাল’ শিরোনামের নতুন একটি নাটকের শুটিং শেষ করেছেন নির্মাতা মাহফুজ ইসলাম। মাহফুজ ইসলামের পরিচালনা ও রচনায় অভিনেতা আলিফ চৌধুরীর সঙ্গে জুটি বেঁধেছেন জারা মনি ও আফরিন আকন। নাটকটিতে আরো অভিনয় করেছেন আনোয়ার হোসেন, সীমান্ত আহমেদ, বিটলু শামীম সহ প্রমুখ।

নাটকটিতে গল্পে দেখা যাবে – একটা ছেলে সাধারণভাবে জীবন যাপন করতে থাকে। তার ইচ্ছা ছিল দুধের মত সাদা একটি মেয়ে তার স্ত্রী হবে। কিন্তু তা আর হয়নি। তার প্রথম স্ত্রী কালো। পরবর্তীতে একজন সুদর্শন নারীর সাথে পরিচয় হয় তার। মেয়েটিও‌ ছেলেটিকে খুব পছন্দ করে। মেয়েটি ছেলেটিকে বিভিন্নভাবে পটানোর চেষ্টা করে। অতঃপর সফল হয় মেয়েটি। ছেলেটির প্রথম স্ত্রী থাকায় বিয়েতে আপত্তি করেনি সুদর্শন মেয়েটি। পরে প্রথম স্ত্রীর কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে বিয়ে করেন তারা। সংসার জীবনে ছোট বউ চায় মিলেমিশে থাকতে, কিন্তু বড় বউয়ের জন্য সম্ভব হয় না। দুই বউয়ের রেষারেষি ও হিংসা কিভাবে পতন হয় এবং তারা কিভাবে মিল হয় জানতে নাটকটি দেখতে হবে বলে জানান নির্মাতা।

নাটকটি প্রসঙ্গে নির্মাতা মাহফুজ ইসলাম বলেন, মন মানুষিকতা ভাল থাকলে দুই বউ নিয়েও সুন্দর সংসার করা সম্ভব। শর্ত একটাই হিংসা নয় বোনের চোখে দেখুন। একটা ছেলের জীবনের ভিন্ন মাত্রার সরলতা দেখতে চাইলে ‘কপাল’ নাটকটি দেখতে পারে দর্শক।নাটকটিতে যারা কাজ করেছে সকলেই অনেক পরিশ্রম করেছে। কাজের ক্ষেত্রে সবাই অনেক সহায়ক। যে গল্পটি নিয়ে কাজ করেছি সকলেই সেই গল্পের মধ্যে মিশে গিয়েছিল। সকলের কাছ থেকে পরিপূর্ণ অভিনয় পেয়েছি। নাটকটি নিয়ে অনেক আশাবাদী। আমাদের বাস্তব জীবনে বউ একটা থাকুক অথবা দুইটি থাকুক, সকলের মধ্যে যে হিংসা রয়েছে তা পতন হতে পারে এই নাটকটির মাধ্যমে, সেভাবেই নির্মাণ করেছি। দর্শক নাটকটি দেখে সুন্দর একটি মেসেজ পাবে।

অভিনেতা আলিফ চৌধুরী বলেন, নাটকটির কাজের অভিজ্ঞতা দারুন ছিল। মাহফুজ ভাইয়ের গল্প, সাথে চিত্রনাট্য খুবই দুর্দান্ত। নাটকটিতে কাজ করে খুবই ভালো লাগলো। এমন নাটকে কাজ করতে চাই। নাটকটির গল্পে ভিন্নতা রয়েছে, অন্যান্যে গল্পের মত না। নাটকটিতে সুন্দর একটি মেসেজ রয়েছে। দর্শক বিনোদনের পাশাপাশি সুন্দর কিছু জানতে পারবে, শিখতে পারবে। সামনে এমন ভালো ভালো গল্পে কাজ করতে চাই। আমি চাই আমাকে নিয়ে পরিচালক, লেখক ভাবুক। আমাকে নিয়ে গল্প লিখুক।

নির্মাতা জানান, নাটকটি খুব শীঘ্রই ‘টি প্রোডাকশন’এর ব্যানারে মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

তানিন সুবহার ‘রসের হাঁড়ি বাড়াবাড়ি’
ঈদে মোশাররফ করিমের সঙ্গে ৯ নাটকে তানহা তাসনিয়া
নিজেকে চেনাতে চান অভিনেত্রী শ্রেয়সী
তানভীরের ‘মৌনতার মন ভাঙে না
দীপান্বিতা রায় পরিচালিত নাটক ‘বিপতে পড়ে বিয়ে’
বীরাঙ্গনা মায়ের ত্যাগের গল্প ‘বাংলার মা জননী’

আরও খবর